২১শে জুলাই ধর্মতলা সমাবেশকে সফল করতে লেনিনগড়ে বিশাল পথসভা করল খড়দহ ব্লক তৃণমূল যুব কংগ্রেস

0

অলোক আচার্য, লেনিনগড় :- গণতন্ত্র ফিরিয়ে দাও। মেশিন নয়,ব্যালট ফেরাও শ্লোগানকে সামনে রেখে ২১শে জুলাই ধর্মতলা চলো শহীদ স্মরণে সমাবেশকে সফল করতে খড়দহ ব্লক তৃণমৃল যুব কংগ্রেসের উদ্যোগে বৃহষ্পতিবার সন্ধ্যায় এক বিশাল পথসভা অনুষ্ঠিত হয় লেনিনগড় বাজার এলাকায়। খড়দহ ব্লক তৃণমৃল যুব কংগ্রেসের সভাপতি তথা ব্যারাকপুর ২ পঞ্চায়েত সমিতির কর্মাধ্যক্ষ প্রবীর রাজবংশী বলেন এলাকার মানুষেরা সংঘবদ্ধ হন সংযত হন। এলাকায় শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রেখে বিজেপির দুনীর্তির বিরুদ্ধে রুখে দাড়ান। কাটমানির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে সকলে এগিয়ে আসুন। বিলকান্দা ২নং গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় বিজেপির দুষ্কৃতীকারীরা লম্ফজম্ফ করছেন। রাতের অন্ধকারে অন্যায়ভাবে তৃণমূলের পার্টি অফিস ক্লাব দখল করছেন। এর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে ২১শে জুলাই ধর্মতলা শহীদ দিবশে স্মৃতি তর্পনে সকলকে সামিল হয়ে ঐতিহাসিক জনসমাবেশে পরিনত করতে সকলকে সামিল হতে হবে। পথসভায় উপস্হিত হয়ে কেন্দ্রের বিজেপির বিরুদ্ধে জোড়ালো বক্তব্য রাখেন জেলা তৃণমৃল যুব নেতা সৌমিত্র ভট্টাচার্য,তনয় দাস,উত্তর দমদম যুব তৃণমূলের সভাপতি সৌমেন দত্ত সহ পঞ্চায়েতের সদস্যরা। ছাত্র যুব তৃণমূল কংগ্রেসের নেতৃত্বের পাশাপাশি মহিলাদের উপস্হিতি ছিল লক্ষ্যনীয়।জেলা তৃণমৃল কংগ্রেসের লড়াকু নেতা প্রবীর রাজবংশী আরও বলেন এলাকায় উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখতে সিপিএম বিজেপির অশুভ আতাতের শক্তিকে প্রতিহত করতে তৃণমূল কর্মী ও সমর্থকেরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে ২১ শে জুলাইয়ের শহীদ সমাবেশকে সফল করতে সংঘবদ্ধ হন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিভিন্ন জনমুখী প্রকল্পগুলি গ্রামের মানুষের কাছে বেশী করে পৌছে দিতে পঞ্চায়েতের সদস্যরা বেশি করে সক্রিয় হন। মুখ্যমন্ত্রীর নামে কুৎসা ও অপপ্রচারের বিরুদ্ধে খড়দহ ব্লক এলাকায় তৃণমৃলকর্মী সমর্থকরা রুখে দাঁড়িয়ে প্রতিবাদ আন্দোলন করবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

5 × four =