বাইজিদ মন্ডল, রায়দিঘিঃ- সর্ব ধর্ম মিলে মিশে সংখ্যালঘু ছাত্র-ছাত্রীদের উন্নয়ন বিষয় নিয়ে রাজ্যের মধ্যে এই প্রথম মাইনোরিটি সংখ্যালঘু সেলের প্রচেষ্টায় রায়দিঘি কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের নিয়ে সেমিনার অনুষ্ঠিত হল রায়দিঘি কলেজ এস.আর. বাসু মেমোরিয়াল হলে। এখানে হিন্দু, মুসলিম, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান সর্ব ধর্ম উপস্থিতিতে এই অনুষ্ঠানটি হয়। উপস্থিত ছিলেন রায়দিঘি কলেজের অধ্যক্ষ ডা: সসুবিন্দু জানা, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কলকাতা হাইকোর্টের প্রাক্তন বিচারপতি ও রাজ্যের মাইনরিটি সেলের প্রাক্তন সভাপতি ইন্তাজ আলী, রায়দিঘি সাহেব বাড়ির ফাদার প্রদীপ দাড়ি, মাওলানা আব্দুর রাজ্জাক সাহেব, ড: জাহান আলী পুরকাইত সহ আরও অনেকে।

এই অনুষ্ঠানের মূল উদ্দেশ্য ছিল সংখ্যালঘু পিছিয়ে পড়া ছাত্র-ছাত্রীদের বিভিন্ন সুযোগ সুবিধার বিষয়ে তাদের মধ্যে তুলে ধরা হয় এবং কি ভাবে এই সব ছাত্র-ছাত্রীরা উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে পৌঁছাতে পারে। আগত অতিথিদের কে উত্তরীয় পরিয়ে তার পাশাপাশি সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির বার্তা দিয়ে সকল কে ধর্মীয় বই বাংলা কুরআন ও হাদীস দিয়ে সংবর্ধনা সম্মাননা প্রদান করা হয়।

এই অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন ডা: জাহান আলী পুরকাইত, তিনি প্রতিবেদককে মাইনরিটি সংখ্যালঘু মানে অনেক বিতর্ক দেখা যায়, সেটা পরিষ্কার করে জানিয়েছেন যে, মূলত অনেকে মনে করেন সংখ্যালঘু মানে ছোট। অনেকে মনে করেন ধর্মীয় সংখ্যালঘু,জাতি গোষ্ঠী ভাবে সংখ্যালঘু, কেউ ভাবে ভাষা সংখ্যালঘু। মাইনরিটি সংখ্যালঘু হিন্দু,মুসলিম, বৌদ্ধ খ্রিস্টান সকল সম্প্রদায়ের মধ্যে হতে পারে।