সংবাদদাতা, বসিরহাটঃ- দেশ জুড়ে করোনার ভয়াবহ পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে সংক্রমণ রুখতে উদ্যোগ নিলেন এপার বাংলা ওপার বাংলার আমদানি রপ্তানির ব্যবসায়ী সংস্থার মালিকরা। এদিন উঃ ২৪ পরগণার বসিরহাট ঘোজাডাঙ্গা সীমান্তের দু’দেশের স্থল বন্দর এক দিকে ঘোজাডাঙ্গা অন্যদিকে ভোমরায় করোনা বিধি কড়া নির্দেশিকা জারি করা হয়। শুরু হয় মাইক প্রচার, মাস্ক ও স্যানিটাইজ ছাড়া পারাপারে নিষেধাজ্ঞা। চলছে প্রত্যেক লরির ড্রাইভার খালাসিদের থার্মাল টেস্ট।

বাংলাদেশ থেকে যে লরি গুলোকে আসছে বা এপার থেকে ওপারে যাচ্ছে প্রত্যেকটিকে স্যানিটাইজার দিয়ে স্প্রে করা হচ্ছে। সংগঠনের পক্ষ থেকে ঘোজাডাঙ্গা সীমান্তে রাখা হয়েছে একটি এম্বুলেন্স। যদি কোন যাত্রী বা ড্রাইভার খালাসি অসুস্থ হয়ে পড়ে সঙ্গে সঙ্গে তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার জন্য। প্রতিদিন ৪০০র বেশি লরি পারাপার হয় এই সীমান্ত দিয়ে। হাজারের বেশি ড্রাইভার খালাসি গাড়িতে যাতায়াত করে। তাদের মাধ্যম দিয়ে করোনা বা ওমিক্রন না ছড়ায় সে কারণেই এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বলে জানান সংগঠনের সম্পাদক সঞ্জীব মন্ডল।

ভোমরা সংগঠনের সম্পাদক নাজমুল আলম মিলন বলেন, তারাও করোনা সংক্রমণ যাতে না ছড়ায়, তার সব রকম ব্যবস্থা নিয়েছেন।