নিজস্ব সংবাদদাতা, স্বরূপনগর :- শিশুকন্যার গায়ের রং কালো বলে মায়ের সামনে ৪ মাসের ছোট্ট শিশুকে আছড়ে মারল বাবা।অভিযুক্ত স্বামীকে পুলিশের হাতে তুলে দিলো স্ত্রী। গ্রেফতার অভিযুক্ত। এই অমানবিক ঘটনাটি ঘটেছে বসিরহাট মহকুমার স্বরূপনগর থানার ঢালীপাড়ায়। অভিযুক্ত বাবা বছর ২৬ এর মনিরুল খাঁ কে পুলিশের হাতে তুলে দিল তার স্ত্রী সোনিয়া বিবি। ঘটনাকে কেন্দ্রকরে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। শিশুকন্যার মা ও তার মামাবাড়ি পক্ষ থেকে অভিযুক্ত বাবা ও তার পরিবারে সদস্যদের কঠোর শাস্তি দাবি করেছে।

শিশুকন্যার বয়স মাত্র চার মাস। বাবা-মা তাদের প্রথম সন্তানের নাম আদোর করে রেখেছিল ঝিকরা। কিন্তু সন্তান কালো হওয়ায় ভালবাসায় বাধ সাদলো। বাবা বছর ২৬ এর মনিরুল খা পেশায় সেলাইয়ের মিস্ত্রি। শিশু কন্যার মা সোনিয়া বিবি। বিয়ের পরে তাদের একমাত্র কন্যা সন্তান ঝিকরা বয়স ৪ মাস। অপরাধ জন্মের পর থেকেই তাদের শিশুকন্যা গায়ের রং কালো হয়। শিশুকন্যা মা অভিযোগ বাবা ও মায়ের মধ্যে প্রায় গন্ডগোল বচসা লেগে থাকত। শনিবার সকাল থেকে স্ত্রীর সোনিয়ার সঙ্গে একদিকে সাংসারিক কাজ অন্যদিকে কন্যা সন্তান কালো তাই অশান্তি চরমে ওঠে। স্ত্রী সোনিয়াকে ঘরের মধ্যে আটকে রেখে। তার কোল থেকে শিশু কন্যাকে তুলে এনে বাড়ির সিঁড়িতে আছেরে ফেলে মেরে ফেলে বাবা। ঘটনাস্থলে ঝিকরা মৃত্যু হয়েছে। এই ঘটনার জেরে স্ত্রীর চিৎকারে স্থানীয় বাসিন্দারা ছুটে এসে মনিরুলকে ধরে ফেলে। ঘটনাস্থলে স্বরূপনগর থানার পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ এসে তার স্ত্রী বয়ান রেকর্ড করার পর সোনিয়া তার স্বামী মনিরুল কে পুলিশের হাতে তুলে দেয়। শিশু কন্যার মৃতদেহ উদ্ধার করে সরুপনগর সারাফুল গ্রামীণ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। স্ত্রীর সোনিয়ার স্বরূপনগর থানায় স্বামী মনিরুল এর বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ দায়ের করে মনিরুলকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। পুলিশের জেরায় খুনের কথা স্বীকার করেছে। অভিযুক্ত বাবা মনিরুলকে আগামীকাল রবিবার বসিরহাট মহকুমা আদালতে তোলা হবে।।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

fourteen + fifteen =