নিজস্ব প্রতিবেদন :  ডার্বি হারের হ্যাঙওভার কাটিয়ে আই লিগে জয়ে ফিরল মোহনবাগান। গতবারের আই লিগ চ্যাম্পিয়ন মিনার্ভা পঞ্জাব এফসিকে তাদের ঘরের মাঠেই ১-০ গোলে হারাল সবুজ মেরুন ব্রিগেড। জয়সূচক গোল হেনরি কিসেকার।

চোটের জন্য ছিলেন না সোনি নর্দি, পিন্টু মাহাতো। ডার্বি ম্যাচে লাল কার্ড দেখায় ছিলেন না কিংসলে। খেলার মতো জায়গায় নেই সুখদেব। অফিস খেলতে গিয়েছেন ব্রিটো, দলরাজ। এই অবস্থায় পঞ্চকুলার বুধবার দুপুরে মিনার্ভার বিরুদ্ধে দুরন্ত ফুটবল খেলল মোহনবাগান। বিদেশি ডিফেন্ডার ছাড়াই ওপোকুদের আটকে দিলেন কিমকিমা, গুরজিন্দর, অরিজিত্, আম্বেকররা। সেই সঙ্গে ওমর-কিনোয়াকি-হেনরি-ডিকা চার বিদেশিই নজরকাড়া ফুটবল খেললেন। প্রথমার্ধে তো মিনার্ভা রক্ষণে আক্রমণের ঢেউ তুললেন শঙ্করলালের ছেলেরা। বিরতির কিছু মিনিট আগেই ওমরের ফ্রি কিক গোললাইন থেকে ফেরালেন কেসেইডো। বাগান ফুটবলাররা গোলের দাবি জানালেও রেফারি তা নাকচ করে দেন। দ্বিতীয়ার্ধে ঘরের মাঠে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করে পল মুনস্টারের ছেলেরা। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধ শুরুর কিছুক্ষণ পরে হেনরির শট বক্সের মধ্যে মিনার্ভার আকাশদীপের হাতে লাগলেও রেফারি পেনাল্টি দেননি। তেমনই মোহনবাগানের সামনে এদিন বাধা হয়ে দাঁড়ায় বারপোস্ট। তিন তিনবার নিশ্চিত গোল বাধা পেল পোস্টে। শেষ পর্যন্ত ম্যাচের ৮০ মিনিটে হেনরি কিসেকার দুরন্ত গোলে এগিয়ে যায় মোহনবাগান। গোল হজম করে অবশ্য সমতা ফেরানোর চেষ্টা করে মিনার্ভা। আই লিগে তিন ম্যাচ পর সেই অ্যাওয়ে ম্যাচেই আবার জয়ে ফিরল মোহনবাগান। ম্যাচের সেরা হয়েছেন হেনরি। ৮ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলে ছয় নম্বরে উঠে এল সবুজ-মেরুন ব্রিগেড।

ডার্বি ম্যাচের পর রেফারিং নিয়ে ফেডারেশনের কাছে অভিযোগ জানিয়েছিল মোহনবাগান। পঞ্চকুলায় বুধবার ম্যাচ শেষে গোল বাতিল, ন্যায্য পেনাল্টি না দেওয়া সহ খারাপ রেফারিং নিয়ে আই লিগ সিইও সুনন্দ ধরের কাছে ফের অভিযোগ পাঠালেন ফুটবল সচিব স্বপন বন্দ্যোপাধ্যায়। আপাতত অ্যাওয়ে ম্যাচে জিতে অক্সিজেন পেল মোহনবাগান। ২৩ ডিসেম্বর ঘরের মাঠে শিলং লাজংয়ের বিরুদ্ধে মোহনবাগানের পরের ম্যাচ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

seventeen + 8 =