নিজস্ব সংবাদদাতা, হাসনাবাদ :- শুক্রবার সকালে হাসনাবাদের ভবানীপুর এক নম্বর পঞ্চায়েতের পুরনো ফেরিঘাটের পাশে পতাকা উত্তোলন করে বিজেপির যুব সংগঠনের কর্মীরা। তারপর বিজেপি সমর্থকদের নিয়ে এলাকায় একটি পায়ে হেঁটে মিছিল বার করা হয়েছিল সংগঠনের পক্ষ থেকে। এরপরই এলাকায় হামলা চালিয়ে বিজেপির পতাকা খুলে ফেলে দেওয়ার পাশাপাশি বিজেপি সমর্থকদের দোকান ও বাড়িতে ভাঙচুর চালানো হয় বলে অভিযোগ ওঠে আক্রান্তদের পক্ষ থেকে। জানা যায়, বিজেপিকে সমর্থন করার অপরাধে একটি বস্ত্র ব্যবসায়ী দোকান, একটি চায়ের দোকান, সেলুন সহ বেশ কয়েকটি দোকানে ভাঙচুর চালানোর পাশাপাশি দোকানের জিনিসপত্র নদীতে ফেলে দেয় ও বেশ কিছু জিনিস লুট করে নিয়ে যায় হামলাকারীরা।

হামলার পিছনে তৃণমূলের হাত রয়েছে বলে আক্রান্ত এক বস্তুর ব্যবসায়ী জানান, ” ভবানীপুর এক নম্বর পঞ্চায়েত এলাকা বিরোধীশূন্য করে রাখার জন্য বিজেপির পতাকা ছিড়ে ফেলে দেয় তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। ভবানীপুর এক নম্বর পঞ্চায়েতের প্রধান প্রদীপ মল্লিকের নির্দেশে বিজেপি সমর্থকদের দোকান ভাঙচুর ও লুট করার পাশাপাশি ভাঙচুর করা হয় বিজেপি সমর্থকদের বাড়িও”। শুক্রবার সকালে এই ঘটনার পর থেকে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকাবাসীদের মধ্যে। ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যান হাসনাবাদ থানার পুলিশ।