পল মৈত্র, দক্ষিণ দিনাজপুরঃ- দীর্ঘদিন ধরে প্রশাসনিক নজরদারী ও উন্নয়নের অভাবে বর্তমানে নানান সমস্যায় জর্জরিত দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার বহু পুরাতন বংশীহারী শ্মশান ঘাট। শ্মশানে নেই কোন পাকা নদী ঘাট, নেই কোন সীমানা প্রাচীর, নেই উপযুক্ত সরকারি জলের ব্যবস্থা।বিগত দিনে প্রশাসনের তরফে বংশীহারী শ্মশানে একটি মটর কল বসানো হলেও, বর্তমানে এই মোটর কল টি পরিচালনার মানুষের অভাবে, সমস্যায় পড়ছেন শ্মশানে যাওয়া স্বজনহারানো মানুষজনেরা। এলাকাবাসীদের অভিযোগ, প্রয়োজনে ফোন করে নির্দিষ্ট টাকার বিনিময়ে ডেকে আনতে হয় মোটর কল চালক কে।এছাড়াও শ্মশানে নির্দিষ্ট কোনো জায়গা না থাকায় দিনের পর দিন মৃত দেহের অস্থি সহ অন্যান্য বর্জ্য পদার্থ ফেলা হচ্ছে শ্মশান সংলগ্ন টাঙ্গন নদীর জলে , যার ফলে ছড়াচ্ছে ভয়াবহ জলদূষণ। এছাড়াও শ্মশানে নেই কোন ইলেকট্রিক চুল্লি , যার ফলে ঝড় জলের রাতে চরম ভোগান্তির শিকার হতে হয় মৃতদেহের পরিজন দের। এলাকার বাসিন্দাদের দাবী , জনগণের স্বার্থে অবিলম্বে বংশীহারী শ্মশান ঘাটে ইলেকট্রিক চুল্লি , পাকা নদী ঘাট এবং উপযুক্ত জলের ব্যবস্থা করুক স্থানীয় প্রশাসন।