অলোক আচার্য, নব বারাকপুরঃ- মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঐকান্তিক অনুপ্রেরণায় নব বারাকপুর শহর তৃণমূল ছাত্র পরিষদের উদ্যোগে শুক্রবার সকালে রক্তদান শিবির হ’ল কৃষ্টি প্রেক্ষাগৃহে সামনে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ দফতরের ভ্রাম্যমান শীততাপ নিয়ন্ত্রিত মোবাইল ভ্যানে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে শারীরিক দুরত্ব বজায় রেখে সকলেই মাস্ক পরে স্যানিটাইজার করে ৭৩ জন রক্তদান তৃণমূল ছাত্র পরিষদের কর্মীরা ও শুভানুধ্যায়িরা রক্তদান করেন। নীলরতন সরকার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল ব্লাড ব্যাঙ্ক ও মানিকতলা কেন্দ্রীয় ব্লাড ব্যাঙ্কের চিকিৎসকরা রক্ত সংগ্রহ করে এদিন।

শিবিরে উপস্থিত থেকে রক্তদাতাদের উৎসাহিত করেন নব বারাকপুর শহর তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি সুখেন মজুমদার, জেলা তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভাপতি বাণীব্রত চক্রবর্তী, পুরসভার মুখ্য প্রশাসক তৃপ্তি মজুমদার, প্রশাসক মন্ডলীর সদস্য মিহির দে, প্রবীর সাহা, জয়গোপাল ভট্টাচার্য, সুমন দে, ইন্ডিয়ান আর্ট কলেজের অধ্যক্ষ দেবাশিস মিত্র, জেলা তৃণমূল নেতা ঋষিকেষ রায়, তৃণমূল মহিলা নেত্রী নির্মিকা বাগচী, ১১০ দমদম উত্তর বিধানসভা তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভানেত্রী সানন্দা হালদার, ডাঃ পংকজ কুমার অধিকারী, ১৭ নং ওয়ার্ডের কোঅর্ডিনেটর নিখিল মালো, ১ নং ওয়ার্ডের কোঅর্ডিনেটর পূর্নিমা রায়, সহ এপিসি কলেজের ছাত্র সংসদের সাধারণ সম্পাদক সুমন দে সহ বিশিষ্ট জনেরা।

শিবিরে উপস্থিত অতিথিদের উত্তরীয় ও চারাগাছ দিয়ে সম্মানিত করা হয়। সমগ্র অনুষ্ঠানটি সুষ্ঠু ভাবে পরিচালনা ও সঞ্চালনা করেন নব বারাকপুর শহর তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভাপতি তথা পুরসভার ৭ নং ওয়ার্ডের কোঅর্ডিনেটর মনোজ কুমার সরকার। প্রাকৃতিক দুর্যোগ কে উপেক্ষা করে তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সদস্যদের আন্তরিকতা ও স্থানীয় নেতৃত্বদের সার্বিক স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে শিবির সার্থক রুপ পায় এদিন।