চঞ্চল মিস্তিরী, বাংলাদেশ প্রতিনিধি :- ধামরাই থানা ছাত্রলীগ ও যুবলীগের নিবেদিত প্রাণ নেতা- কর্মীরা বিশ্ব বন্ধু জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের সকল হত্যাকারীদেরকে দেশে এনে মহামান্য আদালতের রায় কার্যকর করার দাবীতে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে ধামরাই ঢুলিভিটায় শত শত ছাত্রলীগ ও যুবলীগের নেতাকর্মীদের উপস্হিতিতে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করেছে।মানব বন্ধন কর্মসূচী শেষে ডিসির বরাবর স্মারক লিপি”টি ধামরাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আবুল কালাম এর নিকট প্রদান করেছে।এ’কর্মসূচির উদ্যোক্তা ধামরাই উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ন- আহবায়ক ও শান্ত মারিয়াম বিশ্ববিদ্যালয় শাখার ছাত্রলীগের প্রতিষ্টাতা সভাপতি- ধামরাই উপজেলা যুবলীগ নেতা জাকারিয়া দীপু, ধামরাই উপজেলার ছাত্রলীগের যুগ্ন- আহবায়ক রবিউল আওয়াল, সহ উপস্হিত ছিলেন ঢাকা জেলা উত্তর ছাত্রলীগ নেতা তুষার আহমেদ,নওশাদ খান শুভ,ঢাকা জেলা ছাত্রলীগ নেতা- রবিন খান রিজভী, জুবায়ের আহমেদ অনিক,ধামরাই উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা সুমন হোসেন সহ অন্যান্য ছাত্রলীগ ও যুবলীগের প্রায় তিন শতাধিক নেতাকর্মী।মানব বন্ধন এ’কর্মসূচীতে ছাত্রলীগ ও যুবলীগ নেতৃবৃন্দ বলেন- জাতির পিতা ও তার পরিবারের সদস্যদের হত্যাকান্ডের চার দশক পরও মহামান্য আদালতের ১২জন মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত আসামীদের মধ্যে ছয় জনের রায় কার্যকর হয়েছে এখনো বাকী ছয় জন বিভিন্ন দেশে পলাতক রয়েছে।এরা হলেন- লে,কর্ণেল খন্দকার আব্দুর রশিদ,মেজর শরিফুল হক ডালিম,রিসালদার মোসলেহ উদ্দিন খান, লে, কর্ণেল রাশেদ চৌধুরী,মেজর নূর চৌধুরী ও ক্যাপ্টেন আব্দুল মাজেদ।বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ঢাকা জেলা ও ধামরাই উপজেলা শাখার নেতৃবৃন্দ ও ধামরাই উপজেলা শাখার যুবলীগ নেতৃবৃন্দের দাবী এই নরপশু খুনীদের আদালতের বিচারের রায় প্রলম্বিত করা হোক তা চায় না।

কাজেই মানণীয় জেলা প্রশাসক মহোদয়ের মাধ্যমে যুবলীগ ও ছাত্রলীগের চাওয়া একটাই অবিলম্বে এই নৃংশক খুনীদের দেশে ফিরিয়ে এনে ফাঁসির রায় কার্যকর ও বাস্তবায়নের মাধ্যমে জাতিকে কলঙ্ক মুক্ত করতে কার্যকর উদ্যোগ গ্রহন করা হউক।