দীর্ঘ দশ বছর পর পাকিস্তানের মাটিতে হবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ম্যাচ

0
Advertisement

বিশেষ সংবাদদাতা :- দীর্ঘ দশ বছর পর পাকিস্তানের মাটিতে হবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ম্যাচ। লাহোরের গদ্দাফি স্টেডিয়ামে জঙ্গি হামলায় সেবার ছয়জন শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটার আহত হয়েছিলেন। অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচেছিলেন লঙ্কার ক্রিকেটাররা। ২০০৯-এর মার্চ মাসের ঘটনা। তার পর থেকে পাকিস্তানের মাটিতে আর কোনও দেশ সিরিজ খেলতে যেতে চায়নি। এমনকী এখনও চায় না। এদিকে পিসিবি বারবার নিশ্চিত করেছে, সফররত দলকে তাদের সরকার নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা দিতে প্রস্তুত। অস্ট্রেলিয়া, বাংলাদেশ, দক্ষিণ আফ্রিকার মতো দেশের ক্রিকেট সংস্থাকে বারবার তাদের দেশে খেলতে আসার অনুরোধ জানিয়েও হতাশ পাক বোর্ড। শেষমেশ শ্রীলঙ্কা রাজি হয়েছিল। কিন্তু তাতেও বিপত্তি। শ্রীলঙ্কার একাধিক ক্রিকেটার পাকিস্তানে খেলতে যেতে রাজি নন। তাই সফর প্রায় ভেস্তে যাওয়ার জোগাড় হয়েছিল।

পাকিস্তানে খেলার জন্য দল পাঠাবে শ্রীলঙ্কা। শ্রীলঙ্কার ক্রিকেট সেক্রেটারি মোহন সিলভা জানিয়েছেন, দেশের প্রতিরক্ষা মন্ত্রকেক তরফে সবুজ সঙ্কেত দেওয়া হয়েছে। তাই পাকিস্তানে তারা দল পাঠাতে রাজি। তিনি ও শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট সংস্থার একাধিক কর্তা দলের সঙ্গে পাকিস্তান সফরে যাবেন বলে জানা গিয়েছে। পাকিস্তানে ছয় ম্যাচের সিরিজ খেলতে যাবে শ্রীলঙ্কা।

২৭ সেপ্টেম্বর প্রথম ম্যাচ। গত মাসেই মোহন সিলভা ও শ্রীলঙ্কা সরকারের কয়েকজন প্রতিনিধি পাকিস্তানে নিরাপত্তা বিষয়ক দিক খতিয়ে দেখতে গিয়েছিলেন। কিন্তু এর পরই শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রীর দফতর থেকে জানানো হয়, তাদের কাছে খবর রয়েছে যে আরও একবার শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের উপর আক্রমণ হতে পারে। যদিও এমন কোনও সম্ভাবনার কথা উড়িয়ে দেয় পিসিবি ও ইমরান খানের সরকার। তিনটি একদিনের ও তিনটি টি-২০ ম্যাচের জন্য ইতিমধ্যে দল ঘোষণা করেছে শ্রীলঙ্কা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

19 − eight =