অলোক আচার্য, নব বারাকপুরঃ- সব জায়গায় শেখার প্রয়োজন আছে। যারা শেখান তারা সবাই শিক্ষা গুরু। না শিখলে কোন কিছু করা যায় না। জীবনের চলার পথে এগিয়ে যেতে প্রতিটি স্তরে শিক্ষা গুরুদের সম্মান দিতে হবে। রবিবার সন্ধ্যায় জাতীয় শিক্ষক দিবসে নিউ বারাকপুর তৃণমূল ছাত্র পরিষদের উদ্যোগে কৃষ্টি প্রেক্ষাগৃহে সামনে অস্থায়ী প্রাঙ্গণে গুরুপ্রণাম উদযাপন অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে কথা গুলি বলেন রাজ্যের পুর ও নগরোন্নয়ন দফতরের মন্ত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য ।

তিনি বলেন, একটি রাজনৈতিক দলের শ্লোগান শিক্ষা আনে চেতনা। চেতনা আনে বিপ্লব।আপাতদৃষ্টিতে বলব ঠিক। শিক্ষা আনে চেতনা ।বিপ্লব মানে মারামারি নয়। রক্তারক্তি নয়। চেতনা আনে ক্লান্তি। জীবনের বিভিন্ন স্তরে ক্লান্তি নিয়ে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে। জীবনের চলার পথে ক্লান্তি মসৃন হবে। জন্মাবারপর বাবা মায়ের হাত ধরে পথ চলা। তারপর স্কুল কলেজে জীবনে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া। ঠিক সেইভাবে শিক্ষা গুরু রা পথ চলা দেখাবে। নতুন সমাজ গঠনে শিক্ষক শিক্ষিকা দের বড় ভূমিকা রয়েছে। সঠিক ভাবে চলার পথকে এগিয়ে নিয়ে যেতে শিক্ষক দের অবদান অনস্বীকার্য।

রাজ্যের মানবিক মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শিক্ষক সমাজকে যথাযথ সম্মান শ্রদ্ধা দিয়ে এগিয়ে নিয়ে চলেছেন সেই পথ আমাদের অনুসরণ ও অনুকরণ করে চলা উচিত। মন্ত্রী আরও বলেন, আমার শিক্ষাগুরু পথ চলা শিখিয়েছেন এগিয়ে যেতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কে শ্রদ্ধা ও প্রণাম করি। গুরুপ্রণাম উদযাপন অনুষ্ঠানে শিক্ষক-শিক্ষিকা, অধ্যাপক-অধ্যাপিকারা এসে অনুষ্ঠানের মর্যাদা অনেক বাড়িয়ে দিয়েছেন তাদের সকলকে শ্রদ্ধা নিবেদন করি।

এলাকার উন্নয়ন প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, নববারাকপুর ছোট শহর ভালো শহর হবে এবিষয়ে নিশ্চিত। আরও উন্নত ও উচ্চ মানের করা হবে আপনারা নিশ্চিত থাকুন। বিধায়ক হিসেবে নির্বাচিত করেছেন। পুর ও নগরোন্নয়ন দফতরের মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছি। সেই পথ ধরে শহরকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারব এই অনুষ্ঠানে থেকে প্রতিজ্ঞা ও অঙ্গীকার করছি। নববারাকপুর শহরে বিভিন্ন ওয়ার্ডের স্কুল কলেজের শিক্ষক শিক্ষিকা অধ্যাপক অধ্যাপিকা দের সম্মানিত করা হয় এদিন মঞ্চে।

উপস্থিত ছিলেন সাংসদ অধ্যাপক সৌগত রায়, নববারাকপুর শহর তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি সুখেন মজুমদার, দমদম – ব্যারাকপুর জেলার যুব তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি দেবরাজ চক্রবর্তী, জেলা তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভাপতি বাণীব্রত চক্রবর্তী, নববারাকপুর পুরসভার মুখ্য প্রশাসক প্রবীর সাহা, উপ মুখ্য প্রশাসক মিহির দে, প্রশাসক মন্ডলীর সদস্য জয়গোপাল ভট্টাচার্য, সুমন দে, নির্মিকা বাগচী এবং প্রাক্তন প্রশাসক তৃপ্তি মজুমদার, শিক্ষাবিদ নির্মল বোস, ইন্ডিয়ান আর্ট কলেজের অধ্যক্ষ দেবাশিস মিত্র, বয়েজ হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক ডঃ অনিরুদ্ধ বিশ্বাস, এপিসি কলেজের অধ্যক্ষ ড: শক্তিব্রত ভৌমিক, আচার্য প্রফুল্ল চন্দ্র মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ ড. সুনিল কুমার বিশ্বাস, উলুবেড়িয়া কলেজের অধ্যাপক ড:নিখিল চন্দ্র হালদার, সহ বিশিষ্ট জনেরা।

শিক্ষাবিদ ডঃ সর্বপল্লি রাধা কৃষ্ণণের প্রতিচ্ছবিতে মালা ও ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান বিশিষ্ট জনেরা ।উপস্থিত ১১০ জন শিক্ষক শিক্ষিকা অধ্যাপক অধ্যাপিকা শিক্ষাকর্মী দের সন্মানিত করা হয় উত্তরীয়, ফুলের তোড়া, মিষ্টি ও সন্মাননা স্মারক দিয়ে ।সমগ্র অনুষ্ঠানটি পরিচালনা ও সঞ্চালনার দায়িত্বে ছিলেন নিউ বারাকপুর শহর তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভাপতি মনোজ সরকার।