Advertisement

কলমের দুনিয়া, কাঁকিনাড়া :- কাঁকিনাড়া মাদ্রাল এর এক পাবজী গেমের আসর থেকে উদ্ধার ৮ জন স্কুল পড়ুয়া। পুলিশ গ্রেপ্তার করলো দুই মালিক কে।
স্কুলে টিফিন এর জন্য বাড়ি থেকে দেওয়া পয়সা জমিয়ে এক ঘন্টায় দশ টাকার বিনিময়ে চলতো মোবাইল গেম। কেউ প্রাইভেট টিউশান আবার কেউ অন্য অছিলায় বাড়ি থেকে বেরিয়ে ঢুকে পড়তো অনিল সাউ এর দোকানে।অন্ধকার দোকানে হাফ সাটার বন্ধ অবস্থায় Mobile হাতে নিয়ে চলতো পাবজি গেম সহ নানান মোবাইল ভিডিও গেম।
যাদের বাড়িতে মোবাইল ধরা মানা,তারাই এখানে ভিডিও গেম খেলতে ভীড় জমাতো। এলাকার বাসিন্দাদের বোঝার ক্ষমতাই হতো না,কারন দোকানের সাটার অধে’ক বন্ধ থাকতো বলে।কিন্তু দোকানের বাইরে সাইকেল আর জুতোর ভীরে ক্রমশ সন্দেহ বাড়তে থাকে এলাকার বাসিন্দাদের। আর সন্দেহের বশে দোকানে হানা দিতেই সবার চক্ষু ছানাবড়া। অন্ধকারে চৌকির উপর মজাশে চলছে মোবাইল গেম। এরপরে এলাকার বাসিন্দারা ভাটপাড়া থানায় খবর দিলে পুলিশ এসে অনিল সাউ ও তার স্ত্রী আশা সাউ নামে দুই জন কে গ্রেপ্তার করেছে ।বাজেয়াপ্ত ১৩ টি দামি এনড্রয়েড মোবাইল ফোন , ওয়াইফাই রাউটার সহ নানা সরঞ্জাম।বাচ্চাদের অভিভাবক দের অভিযোগ বারংবার বারন করা সত্ত্বেও দোকানদার খেলতে দিতো।এই গেম এই প্রতি ক্রমশ আশক্ত হয়ে পড়েছে ছোট ছোট ছেলে মেয়েরা । তবে স্থানিয় বাসিন্দাদের এবং বাচ্চাদের অভিভাবকদের অভিযোগ এর ভিত্তিতে দোকান টি বন্ধ সীল করে দেয় ভাটপাড়া থানার পুলিশ। স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে এই দুজন এখানে সাজার জিনিসের দোকান করার নাম করে ঘর ভাড়া নিয়ে তারি আড়ালে চালাত এই মারণ গেম।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

4 × three =